বিসিবি আইপিএলের অনুমতি না দেয়ায় মুস্তাফিজকে ৩০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেবে

noashad

ক্রিকেটারদের ১৩ দফা দাবি নিয়ে ধর্মঘটের অন্যতম একটি বিষয় ছিলো পারিশ্রমিক বাড়ানো ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা দেয়া। এই দাবিগুলোর মধ্যে ১০টি মেনে নিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। এর প্রেক্ষিতে ধর্মঘট প্রত্যাহার করে মাঠে ফেরার ঘোষণা দিয়েছেন ক্রিকেটাররা। বুধবার রাতে সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। আন্দোলনরত ক্রিকেটাররাও উপস্থিত ছিলেন সেখানে।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) ক্রিকেটারদের দাবি মেনে নেয়ায় সাকিব-তামিমরা মাঠে ফেরার ঘোষণা দিয়েছেন। এর আগে সোমবার দুপুরে বেতন বাড়ানোর দাবিসহ অন্যান্য দাবি নিয়ে ধর্মঘট ডাকেন জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা। নানা নাটকীয়তার পর সোমবার দুপুরে ডাকা ধর্মঘটের সমাধান মিলেছে বুধবার রাতে।

ক্রিকেটারদের সঙ্গে আলোচনার পর বুধবার রাতে সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনসহ বিসিবি পরিচালকরা। আন্দোলনরত ক্রিকেটাররাও উপস্থিত ছিলেন সেখানে।

বাংলাদেশ ক্রিকেটার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের (কোয়াব) সঙ্গে বিসিবির কোনো সম্পৃক্ততা না থাকায় সাকিবদের সেই দাবি মেনে নেয়নি ক্রিকেট বোর্ড। এসব দাবি-দাওয়ার মধ্যে জাতীয় দলের বাঁহাতি পেসার মোস্তাফিজুর রহমানের রাখা দাবিও উত্থাপিত হয়েছিল। তা ছিল মোস্তাফিজকে আর্থিক ক্ষতিপূরণ দেয়ার দাবি। আর সে দাবিও পূরণের আশ্বাস পেয়েছেন তিনি।

ক্রিকেট বোর্ডের দায়িত্বশীল একটি সূত্র জানিয়েছে, আইপিএলে খেলতে অনুমতিপত্র না দেয়ায় যে আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছেন মোস্তাফিজ, তার পরিপ্রেক্ষিতে ৩০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বোর্ড।

২০১৬ সাল থেকে আইপিএলে টানা তিন মৌসুমে খেলেছিলেন মোস্তাফিজ। প্রথম দুবার সানরাইজার্স হায়দরবাদ এবং শেষবার মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের হয়ে আইপিএল মাতিয়েছেন মোস্তাফিজ। যে কারণে ভারতের এই জাঁকজমক ও ব্যয়বহুল টুর্নামেন্টে বাঁহাতি এ কাটার মাস্টার বরাবরই আইকন।

চলতি বছর আইপিএলের শেষ আসরেও দেখা যেতে পারত মোস্তাফিজকে। কিন্তু তাকে এ বছরের আইপিএলে খেলার অনুমতি দেয়নি বিসিবি। কারণ হিসেবে বিসিবির পক্ষ থেকে জানানো হয়, ওয়ানডে বিশ্বকাপের কথা মাথায় রেখে মোস্তাফিজকে আইপিএলে খেলতে যাওয়ার অনুমতি দেয়া হয়নি।

তখন ক্রীড়ামহলে পাল্টা কথা ওঠে জাতীয় দলের কোনো খেলা না থাকার পরও আইপিএল খেলতে যেতে অনুমিত না দেয়ায় মোস্তাফিজ যে আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছেন- সে ব্যাপারে বোর্ড কিছু করবে কিনা। কিন্তু এ বিষয়ে তখন বিসিবির পক্ষ থেকে কোনো সিদ্ধান্তই জানানো হয়নি। তবে ক্রিকেটারদের ধর্মঘটের পর অবশেষে সেই আর্থিক ক্ষতিপূরণের আশ্বাস পেয়েছেন মোস্তাফিজ।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.