হবু বরের সঙ্গে মধ্যরাতে ঘুরতে গিয়ে প্রাণ গেল বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর

এক বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী হবু বরের সঙ্গে পতেঙ্গা সমুদ্রসৈকতে বেড়াতে গিয়ে ফেরার সময় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন। রোববার রাতে নগরীর পতেঙ্গা থানাধীন বোট ক্লাবের সামনে ঘটনা ঘটে। এ সময় হবু স্বামী ও তার বন্ধু আহত হয়েছেন। নিহত তরুণীর নাম যারিন জাহরা (২০)। তিনি নগরীর চান্দগাঁও আবাসিক এলাকার ৯ নম্বর রোডের তিন নম্বর ব্লকের বাসিন্দা আবুল কালামের মেয়ে। নিহত যারিন ইস্ট ডেল্টা ইউনিভার্সিটির কম্পিউটার সায়েন্স বিভাগের দ্বিতীয় সেমিস্টারের ছাত্রী ছিলেন। চন্দনাইশ উপজেলার এলাহাবাদ এলাকার ইফতেখার আহমেদ জিসানের সঙ্গে তার বিয়ের কথাবার্তা হয়েছিল। উভয় পরিবারের লোকজনের উপস্থিতিতে বিয়ের দিনক্ষণ চ‚ড়ান্ত হওয়ার কথা ছিল শিগগিরই। তার আগেই যারিন চলে গেলেন না ফেরার দেশে। তার বিয়ের পিঁড়িতে বসা আর হলো না। পুলিশ জানায়, হবু স্বামী ইফতেখারের সঙ্গে একটি প্রাইভেটকারযোগে রোববার রাতে নগরীর পতেঙ্গা সমুদ্রসৈকতে বেড়াতে যান যারিন। সেখান থেকে ফেরার সময় তাদের বহনকারী প্রাইভেটকারটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়ক বিভাজকের সঙ্গে ধাক্কা লাগে। এটি চালাচ্ছিলেন ইফতেখারের এক বন্ধু। দুর্ঘটনায় তিনজনই আহত হন। পতেঙ্গা থানার ওসি উৎপল বড়ুয়া জানান, নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে প্রাইভেটকারটি সড়ক বিভাজনের সঙ্গে ধাক্কা লেগে উল্টে যায়। এতে এক তরুণী মারা গেছেন। আমরা প্রাইভেটকারটি জব্দ করেছি। ময়নাতদন্ত শেষে লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এ ঘটনায় এখনো কোনো মামলা হয়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.